Tik Tok থেকে ইনকাম | টিকটক থেকে প্রতিদিন 1000 টাকা ইনকাম করার সহজ উপায়

Tik Tok বর্তমানে অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম করার জনপ্রিয় মাধ্যম হয়ে দাঁড়িয়েছে বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়া গুলো । আমরা অনেকেই জানতাম অনলাইন থেকে ইনকাম করা যায়। আমরা যে বিষয়গুলো সহজেই জানতাম সেগুলো ওয়েবসাইট থেকে অনলাইনে ইনকাম। ইউটিউব থেকে অনলাইন ইনকাম এবং ফিন্যান্সিং করে অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম।

আরো অনেক সাইট আছে কিন্তু আমরা এগুলোই বেশি চিনতাম এবং জানতাম যে, এগুলো সাইট থেকে অনলাইন ইনকাম করা যায়। কিন্তু বর্তমানে ফেসবুক এর পরে নতুন করে টিকটক থেকে টাকা ইনকাম করা ধুম যেন পড়ে গিয়েছে সারা বিশ্ব জুড়ে ।

বর্তমানের যুগ সোশ্যাল মিডিয়ার যুগ। যদি প্রতিদিন ৫00, ১000, ২000, কিংবা তারও বেশি টাকা ইনকাম করা যায়। কেমন হবে আপনারাই বলুন হ্যাঁ টিকটক থেকে টাকা ইনকাম করা যায়। সেটা যদি আবার সাথে সাথে বিকাশে ও ব্যাংক টেনাসফার এর মাধ্যমে কিংবা মোবাইল রিচার্জ নেওয়া যায় তাহলে কেন মানুষ এখানে কাজ করবেনা।

অনেকে হয়তো লেখাটি পড়ে মিচকি হেসে মনে মনে হয়তোবা ভাবতাছেন এত টাকা যদি টিকটক থেকে ইনকাম করা যায় তাহলে আর ফ্রিল্যান্সিং কাজ শিখে লাভ কী কিংবা ওয়েবসাইট বানিয়ে টাকা ইনকাম করার কি দরকার যদি টিকটক থেকে মোটা অঙ্কের টাকা ইনকাম করা যায়।

টিকটক থেকে টাকা ইনকাম করা যায়, হ্যাঁ আপনি যদি পুরো আর্টিকেলটি পড়ে থাকেন তাহলে আপনিও টিকটক থেকে প্রতিদিন হাজার হাজার টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

টিকটক থেকে টাকা ইনকাম করবেন বা কিভাবে এ বিষয়টি আজকে আলোচনা করবো ইনশাআল্লাহ । আপনারা ধৈর্য্য সহকারে এই পোষ্ট টি পড়বেন এবং তা বোঝার চেষ্টা করবেন চলুন আর দেরি নয় আমরা জেনে নেই যে কিভাবে টিকটক থেকে টাকা ইনকাম করা যায়।

আমরা অনেকেই জানতামনা টিকটক কি? টিকটক কিন্তু আরো দুই থেকে তিন বছর আগেই এসেছে কিন্তু আমরা টিকটক কি এই বিষয় সম্বন্ধে জানতাম না। যখন টিকটক ১ থেকে ২ বছর আগে বিশ্ব বাজারে চলে আসে তখন কিন্তু টিকটক থেকে এক টাকাও ইনকাম করা যেত না। তখন টিকটক থেকে ইনকাম করা যেত না এবং তা মাধ্যমগুলো কেউ জানত না।

মানুষ শুধু বিনোদনের জন্য অর্থাৎ ফানি ভিডিও বানিয়ে নিজেকে স্টার ভাবতে থাকতেন, এটিই ছিল মানুষের একান্ত পাওয়া কিন্তু সময়ের বিবর্তনে সবকিছুই যেন পাল্টে গিয়েছে । সেই ধারাবাহিকতায় টিকটক অ্যাপটি থেকে যে এত টাকা ইনকাম করা যাবে এটা হয়তো অনেকে ভাবতেও পারেননি কারণ অনেকেই শখের বশে টিকটকের শর্ট ভিডিও বানিয়ে থাকতেন ।

কিন্তু সেই শখের বসে টিকটক যে ইনকামের রাস্তা করে দেবে তা কেউ জানত না এখন বর্তমানে যারা শর্টকাট ঠোঁট মিলিয়ে টিকটক ভিডিও করে থাকেন তারা অনলাইন থেকে প্রচুর পরিমাণ টাকা ইনকাম করে থাকে?

তবে এটা বলে রাখা ভালো আমাদের দেশে টিকটক থেকে ইনকাম করার কথাটি নতুন হলেও বিশ্বের উন্নতশীল দেশগুলোতে কিন্তু নতুন নয়। ওইসব দেশে আগে থেকে ইনকাম করার ব্যবস্থা ছিল। ওইসব উন্নতশীল দেশে টিক টক এর মাধ্যমে বিভিন্ন কোম্পানির স্পন্সর থেকে ভালো টাকা ইনকাম করে থাকেন।

এটা ছাড়াও আরো একটি টিকটক থেকে ইনকাম করার নিয়ম চালু করেছিল টিকটক কর্তৃপক্ষ অর্থাৎ যাদের প্রোফাইলে রিয়েল ১০ হাজার ফলোয়ার ও লাস্ট ৩০ দিনে এক লক্ষর উপরে ভিডিও ভিউ থাকবে তাদেরকে কিছু টাকা দেওয়া হয়ে থাকে। তবে এই নিয়মটি এখন অনেক দেশেই চালু হয়ে গিয়েছে বলে জানা যায় ।

তবে এবার জেনে খুশি হবেন সবাই টিকটক নতুন করে আপডেট নিয়ে এসেছে সারা বিশ্বব্যাপী যাতে করে টিকটক থেকে সবাই ডলার কিংবা টাকা ইনকাম করতে পারেন। আপনি যদি ভালো টিকটক করতে পারেন তাহলে আপনিও অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

এখন যে টিকটক কর্তৃপক্ষ বর্তমানে যে আপডেট নিয়ে এসেছে এখন আর কোন কঠিন কন্ডিশন এর প্রয়োজন হয় না। অর্থাৎ সাধারণ কিছু নিয়ম মানলে টিকটক থেকে বর্তমানে যে কেউ প্রতিদিন হাজার হাজার টাকা ইনকাম করে নিতে পারবে বা অনেকে নিচ্ছে ।

কিভাবে টিকটক থেকে টাকা ইনকাম করা যায় ?

বর্তমানে টিকটকের নতুন আপডেট অনুযায়ী যে কেউ চাইলে টিকটকে রেফার করার মাধ্যমে অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন । এখন প্রতিটি রেফারের জন্য টিকটকের পক্ষ থেকে দেওয়া হচ্ছে সর্বোচ্চ ২৪০ টাকা পর্যন্ত । আপনি যদি প্রতিদিন ৫ টি করে রেফার করতে পারেন তাহলে কিন্তু আপনার ইনকাম প্রতিদিন হয়ে যাচ্ছে পনেরশো টাকার মতো।

তবে যাদেরকে রেফার করলে ইনকাম পাওয়া যাবে সে বিষয়টি আগে জানতে হবে। টিকটকের শর্ত অনুযায়ী যারা এখন পর্যন্ত টিকটকের অ্যাপ্লিকেশনটি মোবাইলে ইন্সটল করেনি শুধুমাত্র তাদেরকে রেফার করলে টিক টক এর পক্ষ থেকে কিছু সহজ শর্তসাপেক্ষে এই টাকাগুলো বা এই রেফার কমিশন গুলো  হিসেবে পাওয়া যাবে।

এখন আপনার মনে প্রশ্ন আসতে থাকে আমি কিভাবে রেফার করব হ্যাঁ আপনারা কিভাবে রেফার করবেন তা বিস্তারিত দেওয়া হলঃ

 আমি কিভাবে রেফার করব ?

আগের যুগে মানুষ বলতো বুদ্ধি থাকলে ঘরজামাই থাকতে হয় না ডিজিটাল এই যুগে বা ইস্মার্ট এই যুগে বেশিরভাগ মানুষের কাছে এখন স্মার্ট মোবাইল রয়েছে একটি ফ্যামিলিতে লক্ষ করলে দেখা যায়। একটা ফ্যামিলিতে যত জন মানুষ থাকে প্রায় সকলের কাছে স্মার্টফোন পাওয়া যায় বা ফ্যামিলির সবাই স্মার্টফোন ব্যবহার করে।

চাইলে আপনার ফ্যামিলির লোকদেরকে কিংবা আপনার বন্ধু-বান্ধবদেরকে কিংবা আপনার আত্মীয়-স্বজন কে রেফার করে টাকা ইনকাম করে নিতে পারেন টিকটকের এই সুযোগটি যথাযথ কাজে লাগিয়ে।

টিক টকে কি টাকা ইনভেস্ট করা লাগে ?

একটা মজার বিষয় বলি যে, টিক টক এ টাকা ইনকাম করার জন্য ১ টাকা ও ইনভেস্ট করতে হয় না। সম্পূর্ণ ফ্রিতে এখানে একাউন্ট নিজে খুলে ও অন্য দেরকে একাউন্ট খুলে দেওয়ার মাধ্যমে টাকা ইনকাম করা যায় ।

রেফার ছাড়া টিকটক থেকে অন্যভাবে কি ইনকাম করা যায় ?

এখন বর্তমানে টিকটক থেকে স্পন্সর ও রেফার করে বর্তমানে ইনকাম করার বিষয়টি বেশ প্রচলিত। সেটা আপনারা ইতিপূর্বে হয়তোবা জানতে পেরেছেন। টিকটকের ভিডিও দেখেও কিছু টাকা ইনকাম করা যায় তবে সেটা বেশী একটা না এজন্য এই জিনিসটার প্রতি মানুষের আগ্রহ কম।

তবে ভবিষ্যতে হয়তো বা এ বিষয়টা ভেবে দেখলে দেখতে পারে টিকটক কর্তৃপক্ষ অর্থাৎ ভিডিও দেখলে টাকা ইনকাম হবে বেশি এটা হয়তো বা আপডেট নিয়ে আসতে পারে টিকটক।

তবে বর্তমানে তেমন একটা ভিডিও দেখে টাকা ইনকাম হচ্ছে না ডেলি হয়তোবা ২-৩ টাকার বেশি হয় না । তো বুঝতেই পারতেছেন ২ থেকে ৩ টাকা দিয়ে আর কি হবে তবে ধারণা করা যায় এই আপডেটটি হয়তোবা টিকটক ভেবে দেখবে বা ভবিষ্যতে হয়ত এই টাকার পরিমাণটা বাড়িয়ে দিবে।

একটি মোবাইল দিয়ে কি একাধিক রেফার করা যাবে ?

আপনাদের মনে এখন প্রশ্ন যে একটি মোবাইল দিয়ে কি একাধিক রেফার করা যাবে হ্যাঁ অবশ্যই যাবে একটি মোবাইল দিয়ে একাধিক অ্যাকাউন্ট খুলতে পারবেন তাতে কোন সমস্যা নেই । তবে একটি মোবাইলের বিপরীতে একটি রেফার কমিশন হিসেবে পাবেন।

বিশ্বের সব দেশ থেকে কি কাজ করা যাবে ?

যদিও টিকটক হচ্ছে চিনা দেশের একটি প্রতিষ্ঠান অর্থাৎ চীন দেশের কোম্পানি হচ্ছে টিকটক তবে জেনে খুশি হবেন বিশ্বের প্রায় অনেক দেশ থেকেই কিন্তু টিক টক এ কাজ করা যায়।

আপনারা হয়তো ভাবছেন যে টিকটক যদি চিনা দেশের একটি প্রতিষ্ঠান হয়ে থাকে তাহলে আমরা টাকা উইথড্র করব কেমনে বা টাকা উত্তোলন করব কিভাবে?

টিকটক থেকে পেমেন্ট নেব কিভাবে ?

আপনার যখন টিকটক একাউন্টে টাকা জমা হবে তখন আপনারা টাকা উত্তোলনের জন্য বিকাশ, নগদ, ডাচ বাংলা ইত্যাদি আপনারা তখন সিলেট করে পড়ে আপনারা আপনাদের যে অপারেটর আপনার সিম ইউজ করেন তা ওই সিমে আপনারা টাকা উইড্রো নিতে পারবেন।

টিকটক থেকে বিভিন্ন অপারেটরে মোবাইল সিমে রিচার্জ নেওয়া যায় যেটা তিন থেকে চার সেকেন্ডের ভিতর রিচার্জ করে দিয়ে থাকে। টিকটক অ্যাপ্লিকেশনটি । এবং মাত্র ৫০ টাকা হলেই সরাসরি বিকাশ এর মাধ্যমে নেওয়া যায় যেটি তারা মাত্র ১ মিনিটেরো কম সময়ে ভিতরে পমেন্ট করে থাকে এবং আরেকটি মজার বিষয় হচ্ছে মাত্র ২০ টাকা হলেই বিভিন্ন ব্যাংকের মাধ্যমে পেমেন্ট নেওয়া যায় ।

তবে প্রতিদিন একবারের বেশি পেমেন্ট নেওয়া যায় না । দেশ অনুযায়ী তারা লোকাল কারেন্সির মাধ্যমে মূলত পেমেন্ট গুলো করে থাকে । এটা হল তাদের আরেকটি ভালো দিক ।

টিক টক এ কিভাবে একাউন্ট খুলে টাকা ইনকাম করব ?

বর্তমানে টিকটক একাউন্ট খোলা খুবই সহজ অর্থাৎ জিমেইল দিয়ে অ্যাকাউন্ট খোলা যায়, মোবাইল নাম্বার দিয়ে একাউন্ট খোলা যায়, কিংবা ফেসবুক টুইটার ইনস্টাগ্রাম এর মাধ্যমেও টিক টক এ একাউন্ট খোলা যায়।

টিক টক এ কিভাবে একাউন্ট খুলে কাজ করে টাকা ইনকাম করবেন এ বিষয়ে একটি চমৎকার ভাবে নিচে আপনাদের বোঝার স্বার্থে এক্সাম্পুর দেওয়া হল। আপনারা বিস্তারিত দেখে নিন কিভাবে একাউন্ট খুলবেন আপনারা টিকটক অ্যাকাউন্ট খুললে কাজ শুরু করে দিতে পারেন প্রতিদিন টাকা ইনকাম করার জন্য।

আরো পড়ুন..

২০২১ সালের জনপ্রিয় ৯টি ফ্রিল্যান্সিং ওয়েবসাইট গুলোর তালিকা

ওয়েব সাইট থেকে আয় করার সহজ উপায় ২০২১

মোবাইল থেকে ইনকাম করার সহজ উপায় ২০২১

বন্ধুরা, টিকটক একাউন্ট খোলার সাথে সাথে ইনকাম করবেন,

১. প্রথমে আপনারা টিকটক এইচডি প্লে স্টোর থেকে ডাউনলোড করে নিন।

২. তারপর এপটি ওপেন করুন।

৩. ছবিটির একেবারে উপরে tiktok bonus এই গোল দেয়া জায়গায় ক্লিক করুন। অথবা me বা profile লেখার উপর ক্লিক করুন। তাহলে এরকম ছবি আসবে।

৪. এবার একেবারে উপরে হলুদ আইকনে ক্লিক করুন।

৫.এবার আপনার ইমেইল আইডি দিয়ে একাউন্ট করুন। এতে ঝামেলা কম এবং এটা খুব সহজ।

৬. তৈরি হয়ে গেল আপনার টিকটক একাউন্ট। এবার একটু নিচের দিকে দেখবেন একটা রেফার লিংক দেয়া এবং তার পাশে confirm লেখা এখানে ক্লিক করুন। তাহলে আপনি সাথে সাথে ৫০ থেকে ২০০ টাকা পেয়ে যাবেন, যেটা সেই সময়ই উইথড্র করতে পারবেন।

বাংলাদেশে অনেক ওয়েবসাইট রয়েছে যেখানে আপনারা বাংলা আর্টিকেল লিখে ইনকাম করতে পারবেন তা নিচে ক্লিক করে দেখতে পারেন?

বাংলা আর্টিকেল লিখে ইনকাম | বিকাশ, রকেট, শিওর ক্যাশ, নগদ, মোবাইল রিচার্জ ইত্যাদি বিস্তারিত এখানে

বন্ধুরা আপনাদের যদি বুঝতে সমস্যা হয় তাহলে আপনারা কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করুন আপনার কমেন্ট আমাদের জন্য মূল্যবান..

Leave a Comment